ফ্যান্টাসি কিংডম টিকিট মূল্য 2024

বিনোদন পছন্দ করে না এমন মানুষ খুবই কম আছে, তাই যারা যারা বিনোদন পছন্দ করেন বা ভালবাসেন তাদের জন্য  বাংলাদেশের অন্যতম রিসোর্ট বা পার্ক হল পার হল  ফ্যান্টাসি কিংডম। ফ্যান্টাসি কিংডম রাজধানী ঢাকা অদূরে সাভারের আশুলিয়ার জামগড়ায় প্রায় ২০ একর জায়গা জুড়ে নির্মাণ করা হয়েছে। জনপ্রিয় এই ফ্যান্টাসি কিংডম আধুনিক সব সাইট নিয়ে সাজানো। এই বিনোদন কেন্দ্রে আছে ‘শান্তা মারিয়া, রোলার কোস্টার,র্ম্যা‌জিক কার্পেট,  লেজি রিভার, লস্ট কিংডম, প্লে জুন, ওয়াটার পুল, ডুম স্লাইড, ডান্সিং জোন, এবং ওয়াটার কিংডম।

কিন্তু আপনি যদি এই ফ্যান্টাসি কিংডমে প্রবেশ করতে চান তাহলে আপনাকে অবশ্যই প্রবেশের অনুমতি লাগবে। অর্থাৎ আপনাকে একটি টিকেট ক্রয় করতে হবে। এ পর্যায়ে অনেকের মনে প্রশ্ন আসতে পারে ফ্যান্টাসি কিংডম টিকিট মূল্য কত টাকা। এই টিকেটের মূল্য খুব বেশি নয়, আপনি স্বল্প মূল্যে টিকিট ক্রয় করে এই উপভোগ্য স্থানে ভ্রমণ করতে পারবেন। সম্পূর্ণ লেখাটি পড়ার মাধ্যমে ফ্যান্টাসি কিংডম প্রবেশের মূল্য তালিকা সহ অনেক গুরুত্বপূর্ণ তথ্য জানতে পারবেন।

ফ্যান্টাসি কিংডম টিকিট মূল্য 2024

যেকোনো পার্কে যান না কেন ,সকল পার্কে কিন্তু টিকিটের মূল্য আছে। সে ক্ষেত্রে ফ্যান্টাসি কিংডমেরও কোন বিকল্প নেই। ফ্যান্টাসি কিংডমের বিভিন্ন ধরনের প্রবেশের টিকিট মূল্য আছে। প্রাপ্তবয়স্কদের জন্য পার্কে প্রবেশের টিকিটের মূল্য ৪০০ টাকা। এবং শিশুদের জন্য প্রবেশ টিকিটের মূল্য ৩০০ টাকা মাত্র। ৮ ধরনের রাইডসহ প্যাকেজ মূল্য প্রাপ্তবয়স্কদের জন্য ৮০০ টাকা ,এবং শিশুদের জন্য ৬০০ টাকা মাত্র। আপনারা যারা ফ্যান্টাসি কিংডম টিকেট মূল্য কত তা জানতে চাচ্ছিলেন তাদের জন্য নিচের অংশে বিস্তারিতভাবে দেখানো হলো।

ওয়াটার কিংডম :  সকলের জন্য ফ্যান্টাসি কিংডমে প্রবেশ টিকিটসহ এবং সকল রাইড এর প্যাকেজের মূল্য ৮০০ টাকা। ওয়াটার কিংডম এর প্রবেশ টিকেটের মূল্য ফ্যান্টাসি কিংডমের প্রবেশ টিকেটের মূল্য যুক্ত থাকে।

কম্বো প্যাকেজ: ফ্যান্টাসি কিংডম প্রবেশ ,ওয়াটার কিংডম প্রবেশ ,সকল রাইড এক্সট্রা ড্রিম রেসিং এবং লাঞ্চ অথবা ডিনারসহ জনপ্রতি প্যাকেজ মূল্য ১৫০০ টাকা মাত্র।

ফ্যামিলি প্যাকেজ ৪জন : ফ্যান্টাসি কিংডম ,ওয়াটার কিংডম প্রবেশ ,আনলিমিটেড সকল রাইড এবং লাঞ্চ অথবা ডিনার সব প্যাকেজ মূল্য ৪০০০ টাকা মাত্র।

ফ্যান্টাসি কিংডমের সময়সূচী

ফ্যান্টাসি কিংডম দর্শনার্থীদের জন্য প্রায় সারা বছরই খোলা থাকে ,যদি না কোন প্রাকৃতিক দুর্যোগ না হয়। ফ্যান্টাসি কিংডম প্রতিদিন সকাল ১১ টা থেকে রাত ৮ টা পর্যন্ত খোলা থাকে। তবে সরকারি ছুটির দিনে সকাল ১০টা থেকে রাত ১০ টা পর্যন্ত পার্কে অবস্থান করা যায়।

কোথায় খাবেন

ফ্যান্টাসে কিংডম থিম পার্কের অভ্যন্তরে খাওয়া-দাওয়ার জন্য বেশ ভালো মানের রেস্টুরেন্ট রয়েছে থাই এবং ইন্টারন্যাশনাল মিনু খাবারের জন্য আছে আশুলিয়া ক্যাসেল রেস্টুরেন্ট এবং পাসপোর্ট এর জন্য আছে ওয়াটার ও ক্যাফে রোলার কোস্টার স্টেশন। এবং ফ্যান্টাসি কিংডমের চারপাশে নানা ধরনের হোটেল এবং বাংলা খাবার হয়েছে যার যা খেতে পছন্দ সে সেরকমই খাবার পাবেন, খাবার নিয়ে কোন দুশ্চিন্তা নেই।

কোথায় থাকবেন

আগত দর্শনার্থীদের রাত্রিযাপনের জন্য রয়েছে ৩ তারকা মানের রিসোর্ট আটলান্টিস । যেখানে সুইট ,সুপার ডিলাক্স , ডিলাক্স, এবং স্ট্যান্ডার্ড মানের রুমে এক রাত থাকতে হলে ভাড়া লাগে ৪৭০০ টাকা থেকে ৮৫০০ টাকা মাত্র।

স্কুল ছাত্র ছাত্রীদের জন্য বিশেষ আয়োজন

বাংলাদেশের বিভিন্ন স্কুল থেকে  ছাত্রছাত্রীদের জন্য ফ্যান্টাসি কিংডম অত্যন্ত ঐতিহ্যপূর্ণ একটি ভ্রমণকারী জায়গা। যেখানে প্রায় সারা দেশ থেকে নানা ধরনের স্কুলের ছাত্রছাত্রীরা পর্যটনে আসে ।ছাত্রছাত্রীরা শিক্ষা অর্জনের পাশাপাশি এখানে বিভিন্ন আনন্দদায়ক খেলায় মনোনিবেশ করতে পারে। এবং আকর্ষণীয় রাইটগুলো উপভোগ করতে পারে ,এখানে তারা নানা রকমের মজা ও  আনন্দ করতে পারে…।

শেষে একটা কথাই বলিবো,যারা স্বল্প খরচে ভাল মানের পর্যটক হিসেবে ভ্রমন করতে চান তারা অবশ্যই ফ্যান্টাসি কিংডম এ একবার হলেও ঘুরে আসতে পারেন অল্প খরচে খুব ভালো মানের একটি পার্ক, ধন্যবাদ।

শেষ কথা

আপনি যদি পরিবার-পরিজন নিয়ে ঢাকা শহরের খুব সন্নিকটে কোন ব্যবস্থা নেই যেতে চান তাহলে ফ্যান্টাসি কিংডম আপনার জন্য একটি ভালো সাজেশন হতে পারে। আজকের এই পোস্টের মাধ্যমে আমি আপনাদের সাথে ফ্যান্টাসি কিংডম টিকিট মূল্য কত টাকা তা জানানোর চেষ্টা করেছিলাম। আশা করি এর পাশাপাশি ফ্যান্টাসি কিংডম সম্পর্কে আরো অনেক গুরুত্বপূর্ণ তথ্যগুলো জানতে পেরেছেন।

Leave a Comment