মুখের ব্রণ দূর করার উপায় সম্পর্কে জানুন

মুখের ব্রণ নিয়ে বেশিরভাগ টিনেজার মেয়েরা বেশি ভোগে থাকে। পাশাপাশি বর্তমানে বিভিন্ন ছেলেদের মুখেও গ্রহণ লক্ষ্য করা যায়। একজন ছেলে বা মেয়ের সৌন্দর্য নষ্ট করতে এই মুখের ব্রণ ই যথেষ্ট। অর্থাৎ আশেপাশের লক্ষ্য করলে প্রায় ছেলে মেয়ের মুখেই এই ছোট ছোট দাগ এর ব্রণ দেখা যায়। যেটা অনেকটা বিরক্তি কর একটা জিনিস।

অনেকেই রয়েছেন যারা বিভিন্ন প্রসাধনী ব্যবহার করেছেন এই মুখের ব্রণ দূর করার জন্য। ইতিমধ্যে আবার অনেকেই রয়েছেন যারা বর্তমানে মুখের ব্রণ দূর করার উপায় অনুসন্ধান করেছেন। আপনি মুখের সকল সকল ব্রণ দূর করে পূর্বের মতো মুখের উজ্জ্বলতা ফিরে পাবেন। তবে এজন্য আপনাকে মুখের ব্রণ দূর করার বিভিন্ন উপায় এবং পদ্ধতি অবলম্বন করতে হবে। যা এই পোস্টে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে।

মুখের ব্রণ দূর করার উপায়

আপনার মুখের ব্রণ দূর করতে সবথেকে সহজ একটি প্রক্রিয়া এবং উপায় হচ্ছে বেশি বেশি পানি পান করা। এবং যেকোনো ধরনের ফাস্টফুড এবং ভাজাপোড়া খাবার থেকে দূরে থাকা। আবার বাহির থেকে বাড়িতে আসার পর ঠিক তখনই পরিষ্কার পানি দিয়ে মুখ ধৌত করা। এছাড়াও বিভিন্ন ঘরোয়া উপায় অবলম্বন করে মুখে পেস্ট লাগিয়ে রাখা।

তারপর আপনার মুখ ভালোভাবে পরিষ্কার করুন। যখন ঘর থেকে বের হবেন তখন ছাতা নিয়ে বের হবেন। যাতে রোদের অতি বেগুনি রশ্মি থেকে বেঁচে থাকতে পারেন। কেননা মুখের ব্রণ হওয়ার জন্য সূর্যের আলো হচ্ছে অন্যতম কারণ। এছাড়াও রাতে আপনি ঘুমানোর পূর্বে লেবুর রস এবং দারুচিনি ব্যবহার করতে পারেন।

ছেলেদের মুখে ব্রণ দূর করার উপায়

বেশিরভাগ ক্ষেত্রে মেয়েদের মুখে ব্রণ দেখা যায়। তবে বর্তমানে প্রায় ও তরুণ ছেলেদের মাঝেও এই ব্রণ লক্ষ্য করা গিয়েছে। বিভিন্ন কারণে এই ব্রণ একজন ছেলের মুখে হতে পারে। আবহাওয়ার পরিবর্তন,মুখে তৈলাক্ত ভাব তৈরি হওয়া, সূর্যের অতিবেগুনি রশ্মি মুখে লাগা। এবং বংশগত সমস্যা কারণেও মুখে ব্রণ তৈরি হতে পারে। অতএব জেনে নিন ছেলেদের মুখে ব্রণ হলে তা কিভাবে দূর করবে।

  • মুখে বরফ ব্যবহার করতে পারেন।
  • এলোভেরা জেল ব্যবহার করতে পারেন
  • মুখে হলুদ ব্যবহার করতে পারেন অথবা হলুদের গুঁড়া ব্যবহার করতে পারেন
  • মুখে মধু লাগিয়ে রাখতে পারেন।
  • ঘুমানোর পূর্বে লেবুর রস এবং দারুচিনির পেস্ট লাগিয়ে রাখতে পারেন।
  • এছাড়াও রাতে লবঙ্গ ব্যবহার করতে পারেন।
  • তুলসী পাতার রস ব্যবহার করতে পারেন।
  • ডিমের সাদা অংশ মুখে লাগাতে পারেন।
  • আপেল এবং মধুর মিশ্রণ লাগাতে পারেন।
  • মুলতানি মাটির ব্যবহার করতে পারেন আরো ইত্যাদি পদ্ধতি।

একদিনে ব্রণ দূর করার উপায়

আপনি যদি একদিন এই ব্রণ দূর করতে চান তাহলে হলুদের এবং লেবুর রস দিয়ে পেস্ট বানিয়ে ব্যবহার করতে পারেন। এছাড়াও রাতারাতি ফলাফল পেতে লবঙ্গ ব্যবহার করতে পারেন। কেননা লবঙ্গ ব্রনের ব্যথা এবং ফলাফল কমাতে সাহায্য করে। তাই হালকা গরম পানিতে লবঙ্গের গুঁড়া মিশিয়ে ঘন পেস্ট তৈরি করতে পারেন। তারপর আপনার মুখে ব্যবহার করতে পারেন।

এছাড়াও একদিনেই ব্রণ দূর করতে এলোভেরার জেলের অনেক উপকারীতা রয়েছে। এমনকি সবথেকে কার্যকরী একটি পদ্ধতি হচ্ছে শসার রস এবং বরফ ব্যবহার করা। মুখে লেবুর রস ব্যবহার করা। যাতে মুখের তৈলাক্ত ভাব খুব সহজেই দূর হয়। এছাড়াও রাতারাতি গ্রহণ দূর করতে আপনার কাছে যদি কোন ফেসওয়াশ থেকে থাকে। তাহলে তা দিয়ে ভালো ভাবে মুখ ধৌত করুন।

লেবু দিয়ে ব্রণ দূর করার উপায়

মুখের তৈলাক্ত ভাব দূর করতে লেবুর রস অনেক বেশি উপকারী। এবং মুখ যদি অপরিষ্কার থাকে তাহলে সেটি পরিষ্কার করতেও এই লেবুর রস ব্যবহার করা যায়। এবং প্রায় ক্ষেত্রেই মুখ অপরিষ্কার থাকার কারণে মুখে ব্রণ দেখা দিয়ে থাকে। তাই আপনি লেবুর রস মুখে ব্যবহার করতে পারেন। তবে লেবুর সাথে মধু মিশিয়ে নিলে ফল এর থেকেও ভালো পাওয়া যায়।

৭ দিনে ব্রণ -দূর করার উপায়

প্রায় প্রত্যেকের মুখে ব্রণ আস্তে আস্তে হয়ে থাকে। আপনি যদি মুখ সবসময় পরিষ্কার করে রাখেন তাহলে আপনার মুখে কখনোই ব্রণ হবে না। এছাড়াও ঘর থেকে বের হওয়ার সময় যদি কিছু সতর্কতা অবলম্বন করেন তাহলে আপনার মুখে কখনোই ব্রণ হবে না।

তবে যাদের ইতি মধ্যে মুখে ব্রণ হয়ে গিয়েছে তাদের জন্য কিছু উপায় এখানে উল্লেখ করা হয়েছে। সে উপায় গুলো অবলম্বন করলে আপনি সাত দিনেই মুখে ব্রণ করতে পারবেন। এর মধ্যে সবথেকে কার্যকরী হচ্ছে নিয়ম এবং তুলসীপাতার পেস্ট। এবং ডিমের সাদা অংশ মধু এবং দারুচিনি। এছাড়া নিচের তালিকা গুলো লক্ষ্য করুন।

  • নিমপাতা
  • নিম এবং তুলসী পাতা পেস্ট 
  • মধু এবং দারুচিনি
  • ডিমের সাদা অংশ
  • এলোভেরা জেল
  • লবঙ্গের গুঁড়ো 

মুখের ব্রণ দূর করার ক্রিম

অনেকে রয়েছেন মুখের ব্রণ দূর করতে ঘরোয়া উপায় অবলম্বন করার পরও বিভিন্ন ওষুধ গ্রহণ করে থাকেন। এবং পাশাপাশি বিভিন্ন ক্রিম ব্যবহার করে থাকেন। তবে ক্রিম ব্যবহারে অনেকটা সুফল পাওয়া যায়। যদি ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী ব্যবহার করেন তাহলেই। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য কয়েকটি মুখের ব্রণ দূর করার ক্রিমের নাম উল্লেখ করা হলো।

  • novaclear Acne Cream 
  • Normacne Anti-Bacterial Cleansing Facial Gel
  • Normacne Acne Spot Treatment.
  • Dermedics এর Anti Acne Serum Roll On
  • One Night Acne Solution Patch.

মেয়েদের মুখের ব্রণ দূর করার ক্রিম

মেয়েদের সৌন্দর্য প্রতিযোগিতায় সবথেকে এগিয়ে। তাই তাদের মুখে যদি কোন রকম রং থাকে তাহলে সেই সৌন্দর্য এক নিমিষেই নষ্ট হয়ে যায়। আর এ ব্রণ নিয়ে সবচেয়ে বেশি চিন্তিত মেয়েরা। বিভিন্ন কারনে মেয়েদের মুখে ব্রণ তৈরি হয়ে থাকে। তবে চিন্তার কিছু নেই সঠিক চিকিৎসা নিলেই মুখে ব্রণ খুব সহজে দূর করা যায়।

তো আজকের আলোচনা ইতিমধ্যে মুখের ব্রণ দূর করার প্রাকৃতিক এবং ঘরোয়া উপায় গুলো নিয়ে আলোচনা করেছি। তবে অনেকে রয়েছেন এই ঘরোয়া উপায়গুলো অবলম্বন করতে চান না। বিভিন্ন ঔষধ বা প্রসাধনী ব্যবহার করতে চান।

তবে মেয়েদের ব্রণ দূর করার জন্য অনেকগুলো ক্রিম পাওয়া যায়। তবে সতর্কতার সহিত জেনে রাখুন, এসব ক্রিম গুলো ব্যবহারের পূর্বে অবশ্যই আপনার ডাক্তারের সাথে যোগাযোগ করবেন। এবং নির্দিষ্ট সময় পর্যন্ত এটি ব্যবহার করবেন। অতএব মেয়েদের মুখের ব্রণ দূর করার ক্রিমগুলো হচ্ছেঃ

  • নোভাক্লিয়ার একনি ক্রিম
  • নরম্যাকনে একনি স্পট ট্রিটমেন্ট
  • ডার্মাডিকস অ্যান্টি-একনি সিরাম
  • ওয়ান নাইট একনি প্যাচ
  • নোভাক্লিয়ার একনি ক্লিনজার
  • নরম্যাকনে অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল ক্লিনজিং ফেসিয়াল জেল

মুখের ব্রণ দূর করার ঘরোয়া উপায়

অনেকেই রয়েছেন যারা মুখের ব্রণ দূর করতেই বিভিন্ন বিভিন্ন ওষুধ এবং প্রসাধনী ব্যবহার করে থাকেন। যা মোটেই ঠিক নয়। আমাদের আশেপাশের বিভিন্ন রকম প্রাকৃতিক খাবার রয়েছে এবং প্রাকৃতিক উপাদান রয়েছে। যা সাহায্যে আমরা আমাদের মুখের ব্রণ এক নিমিষেই দূর করতে পারি।

কিন্তু দুর্ভাগ্যবশত এইসব ঘরোয়া উপায় গুলো সম্পর্কে আমরা অনেকেই জানিনা। এবং এই উপায় গুলো ব্যবহার করতেও কাউকে দেখা যায় না। তবে এই সব ঘরোয়া উপায় অবলম্বনে কোনরকম পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া থাকে না। তাই ব্যবহারে নিশ্চিত ফল পাওয়া যায়। তাই আপনার মুখের ব্রণ দূর করতে নিচের দেওয়া ঘরোয়া উপায় গুলো অবলম্বন করুন।

শশার রসঃ

যেহেতু মুখে তৈলাক্ততা ভাব থাকার কারণে ব্রণ হয়ে থাকে। তাই এই শসা মুখের তৈলাক্ত ভাব দূর করতে অনেকটা সাহায্য করে। আপনি যখন বাহির থেকে বাড়িতে আসবেন ঠিক তখন শসার রস দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলতে পারেন। আর মুখের ভাব দূর করতে সবথেকে ভালো একটি মাধ্যম।

শশার রস, চালের গুঁড়া ও মধুঃ

এছাড়াও শসার রসের সাথে চালের গুঁড়ো এবং মধু মিশিয়ে একটি মিশ্রণ বা প্যাক তৈরি করে নিন।  অতঃপর এই প্যাক বা মিশ্রণটি আপনার মুখে সপ্তাহে দুইদিন লাগিয়ে নিন। এতে করে আপনার মুখের ব্রণ দূর করবে এবং মুখের ত্বক অনেকটা ফর্সা করে তুলবে।

মুলতানি মাটিঃ

আমাদের মুখে অতিরিক্ত তৈলাক্ত ভাব থাকার কারণে এ ব্রণের আবির্ভাব দেখা দেয়। অন্যান্য পদ্ধতির মতোই এই পদ্ধতি অবলম্বন করলে আপনি মুখের ব্রণ দূর করতে পারবেন। যেমন মুলতানি মাটির পানি দিয়ে আপনার মুখে ব্যবহার করতে পারেন।

কাঁচা হলুদ এবং চন্দনকাঠের গুঁড়োঃ

এই দুটি উপাদান সম্পর্কে হয়তো অনেকে জানেন না, আপনি যদি কাঁচা হলুদ এবং চন্দন কাঠের গুড়ো একসাথে ব্যবহার করেন। তাহলে আপনার মুখের ব্রণ দূর করা সম্ভব। এজন্য আপনাকে এই দুটি উপাদান দিয়ে একটি মিশ্রণ তৈরি করতে হবে। এবং এটি পেস্ট বানিয়ে আপনার মুখে ব্যবহার করুন। অল্প কিছুক্ষণ মুখে ব্যবহার করার পর ঠান্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

আপেল এবং মধুর মিশ্রণঃ

সবথেকে জনপ্রিয় ঘরোয়া পদ্ধতির মধ্যে মুখের ব্রণ দূর করতে আপেল এবং মধুর মিশ্রন অনেক বেশি উপকারী। প্রথমত আপনাকে আপেলের একটি পেস্ট তৈরি করতে হবে, তারপর ওই আপেলের পেস্টে পাঁচ থেকে ছয় ফোটা মধু মিশাতে হবে। তারপর সম্পূর্ণ মিশ্রণ করে আপনার মুখে ফেলতে লাগিয়ে রাখতে হবে এরপর ঠান্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলতে হবে।

তুলসি পাতার রসঃ

এই তুলসী পাতায় রয়েছে আয়ুর্বেদিক গুণ। আপনার মুখের আক্রান্ত ব্রণের স্থানে তুলসী পাতার রস লাগিয়ে নিন। এরপর কুসুম গরম পানি দিয়ে আপনার মুখে ভালোভাবে ধৌত করুন। আর তুলসী পাতার রস হচ্ছে মুখের ব্রণ দূর করার অন্যতম ঘরোয়া পদ্ধতি।

দারুচিনি গুঁড়ার ও গোলাপজলঃ

দারুচিনি গুঁড়ার সাথে গোলাপ জল সামান্য পরিমাণ মিশিয়ে একটি পেস্ট তৈরি করুন। আর আপনি যদি নিয়মিত পরিমাণ গোলাপ জল ব্যবহার করেন তাহলে আপনার মুখে ব্রণ অনেক আছে দূর হয়ে যাবে। অতঃপর দারুচিনি এবং গোলাপজল এর পেস্ট তৈরি করার পর আপনার মুখে লাগিয়ে নিন। এই পেস্ট লাগানোর ফলে আপনার মুখে যদি কোন রকম চুলকানি তাহলে সেটিও নিরাময় হবে।

ডিমের সাদা অংশঃ

সর্বপ্রথম একটি ডিম নিন, তারপর ডিম ভেঙ্গে ডিমের কুসুম সরিয়ে সাদা অংশ আপনার মুখের ব্রণের জায়গায় মাখিয়ে নিন। অতঃপর সারারাত এই ডিমের সাদা অংশটুকু মুখে লাগিয়ে রাখুন। এটি আপনার মুখের খসখসে ভাব দূর করবে এবং ব্রণ খুব সহজেই কেটে যাবে। তবে আপনি চাইলে ডিমের সাদা অংশের সাথে সামান্য পরিমাণ লেবুর রস ব্যবহার করতে পারেন।

পেঁপে ও চালের গুঁড়োঃ

একটি পাকা পেপে ভালোভাবে ছাড়িয়ে ভর্তা বানিয়ে নিন। তারপর এই ভর্তার সাথে একটু চালের গুঁড়ো এবং লেবুর রস মিশিয়ে নিন। অতঃপর পেস্ট তৈরি হওয়ার পর তা আপনার মুখে ২০ থেকে ২৫ মিনিট মেসেজ করুন। আশা করা যায় আপনার মুখের ব্রণ দূর হয়ে যাবে এবং মুখ অনেকটা পরিষ্কার হয়ে যাবে।

পুদিনা পাতাঃ

মুখের ব্রণ দূর করতে পুদিনা পাতার গুরুত্ব অনেকটা রয়েছে। তাই একটি পুদিনা পাতা এনে ভালোভাবে বেটে পেস্ট তৈরি করুন। এবং এই পেস্ট আপনার মুখে ২০ থেকে ২৫ মিনিট পর্যন্ত লাগিয়ে রাখুন।  তারপর পরিষ্কার পানি দিয়ে আপনার মুখ ধৌত করুন। আশা করা যায় এই ঘরোয়া উপায় গুলো অবলম্বন করলে আপনার মুখের ব্রণ খুব সহজে দূর হয়ে যাবে।

শেষ কথা

আশা করছি আপনারা এই পোস্ট থেকে অনেকটা উপকৃত হয়েছেন। এবং আপনার মুখের ব্রণ দূর করার উপায় গুলো জানতে পেরেছেন। আশা করি এখান থেকে উপায় গুলো জেনে নিয়ে আপনি পরবর্তীতে অনুসরণ করবেন। এবং আপনার মুখে ব্রণ খুব সহজেই দূর করবেন। যদি এই পোস্ট আপনার কাছে উপকৃত মনে হয়ে থাকে। তাহলে অবশ্যই আপনার আশেপাশের ব্যক্তিদেরকে শেয়ার করে জানিয়ে দিবেন। ধন্যবাদ

Leave a Comment